ফেব্রুয়ারি ৮, ২০২৩ ১:১১ অপরাহ্ণ || শতাব্দীর দৃষ্টিকোণ
আন্তর্জাতিক শিরোনাম

তাইওয়ানকে সাড়ে ৭ লাখ ডোজ ভ্যাকসিন দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

তাইয়ানকে সাড়ে ৭ লাখ ডোজ ভ্যাকসিন দেবে যুক্তরাষ্ট্র। বিশ্বব্যাপী ভ্যাকসিন নিয়ে যে ঘাটতি দেখা দিয়েছে তা মেটানোর অংশ হিসেবেই এই পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে বলে রোববার এক বিবৃতিতে নিশ্চিত করেছেন মার্কিন সিনেটর ট্যামি ডাকওর্থ।

করোনা মহামারির বিরুদ্ধে লড়াইয়ে দ্বীপরাষ্ট্র তাইওয়ানকে সহায়তা করতে ভ্যাকসিনের ডোজ পাঠাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র।
তাইওয়ানে সাম্প্রতিক সময়ে দৈনিক সংক্রমণ বৃদ্ধি পেয়েছে। এছাড়া অনেক দেশের মতো তাইওয়ানেও ভ্যাকসিনের স্বল্পতা দেখা দিয়েছে। দেশটির ২ কোটি ৩৫ লাখ মানুষের মধ্যে মাত্র তিন শতাংশ মানুষকে ভ্যাকসিন দেয়া হয়েছে। এদের মধ্যে অধিকাংশই ভ্যাকসিনের মাত্র একটি ডোজ পেয়েছে।

মার্কিন সিনেটর ড্যান সুলিভান এবং ক্রিসটোফার কন্স ট্যামির সঙ্গে তাইওয়ানে সফরের উদ্দেশে রাজধানী তাইপেতে অবস্থিত সংশান বিমানবন্দরে অবতরণের পর ডাকওর্থ জানান, মার্কিন সহায়তার অংশ হিসেবে সাড়ে ৭ লাখ ডোজ ভ্যাকসিন পাবে তাইওয়ান।

এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, তাইওয়ানের জরুরি অবস্থা বিবেচনা করে এবং দেশটির প্রতি অংশীদারিত্বপূর্ণ সম্পর্ককে গুরুত্ব দিয়ে প্রথম ধাপেই ভ্যাকসিন দেয়া হচ্ছে। যদিও এটা যুক্তরাষ্ট্রের জন্য বেশ জটিল। তবে কবে, কখন তাইওয়ানকে ভ্যাকসিন সরবরাহ করা হবে বা তাইওয়ান কোন ভ্যাকসিন পাবে সে বিষয়ে পরিষ্কাভাবে কিছু জানানো হয়নি।

তাইওয়ানের দাবি, আন্তর্জাতিকভাবে বিভিন্ন দেশ থেকে ভ্যাকসিন সরবরাহে বাধা দেয়ার চেষ্টা করছে চীন। তবে বেইজিং এই অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করেছে।

বিনামূল্যে ভ্যাকসিন সরবরাহ করা এবং সমর্থন জানানোয় তাইওয়ানের পররাষ্ট্রমন্ত্রী জোসেফ উ যুক্তরাষ্ট্রকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘আমরা ভ্যাকসিন আমদানির জন্য আপ্রাণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। বেইজিংয়ের বাধা পেরিয়ে এই জীবন রক্ষাকারী ওষুধ আমাদের হাতে পৌঁছাবে এটাই আমাদের আশা।’

এর আগে তাইওয়ানকে চীনের তৈরি ভ্যাকসিন দেয়ার প্রস্তাব দিয়েছিল বেইজিং। কিন্তু এই ভ্যাকসিনের নিরাপত্তা নিয়ে দ্বিধা থাকায় সেই প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছিল তাইওয়ান।

যুক্তরাষ্ট্রের বিমান বাহিনীর বিশেষ বিমানে করে তাইওয়ানে এসেছেন মার্কিন কর্মকর্তারা। এই সফরে তারা তাইওয়ানের প্রেসিডেন্ট তাই ইং-ওয়েনের সঙ্গে সাক্ষাত করবেন এবং নিরাপত্তা ও অন্যান্য বিষয় নিয়ে আলোচনা করবেন। কিছুদিন আগেই তাইওয়ানকে বিনামূল্যে অ্যাস্ট্রাজেনেকার ১২ লাখ ৪ হাজার ডোজ ভ্যাকসিন সরবরাহ করেছে জাপান।

Similar Posts

error: Content is protected !!