ফেব্রুয়ারি ২, ২০২৩ ১:০২ অপরাহ্ণ || শতাব্দীর দৃষ্টিকোণ
জাতীয় শিরোনাম

মামুনুল হকসহ ১৭ জনের বিরুদ্ধে মামলা

জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে ২৬ মার্চ স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে সংঘর্ষের ঘটনায় হেফাজতের যুগ্ম মহাসচিব মামুনুল হকসহ দলটির ১৭ জন নেতা-কর্মীর নামে মামলা হয়েছে। সোমবার রাতে রাজধানীর পল্টন মডেল থানায় খন্দকার আরিফুজ্জামান নামে পুরান ঢাকার এক বাসিন্দা ​এ মামলা করেন।

পল্টন মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু বক্কর সিদ্দিক মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়েছে, খন্দকার আরিফুজ্জামান ২৬ মার্চ দুপুরে বায়তুল মোকাররম মসজিদে জুমার নামাজ পড়তে যান। নামাজ শেষে মসজিদ থেকে বের হয়ে মসজিদের বাইরে উত্তর গেটে কয়েক হাজার জামাত-শিবির-বিএনপি-হেফাজতের বিশাল জমায়েত দেখতে পান। এসময় মামুনুল হকের নির্দেশে তারা সাধারণ মুসল্লিদের ওপর হামলা চালায়। এ হামলায় তিনি গুরুতর আহত হন।

মামলায় অন্য আসামিরা হলেন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের যুগ্ম-মহাসচিব মাওলানা জুনায়েদ আল হাবিব, যুগ্ম-মহাসচিব মাওলানা লোকমান হাবিব, যুগ্ম-মহাসচিব নাসির উদ্দিন মনির, নায়েবে আমির মাওলানা বাহাউদ্দিন জাকারিয়া, মাখজান মাওলানা নুরুল ইসলাম জেহাদী।

এছাড়া ব্রাহ্মণবাড়িয়া নায়েবে আমির মাজেদুর রহমান, মাওলানা হাবিবুর রহমান, মাওলানা খালেদ সাইফুল্লাহ আইয়্যুবী, সহকারী মহাসচিব মাওলানা জসিম উদ্দিন, টঙ্গীর সহ-সাংগঠনিক মাওলানা মাসুদুল করিম, অর্থ সম্পাদক মুফতি মনির হোসাইন কাশেমী, প্রচার সম্পাদক মাওলানা যাকারিয়া নোমান ফয়েজী, মাওলানা ফয়সাল আহমেদ, সহকারী দাওয়া সম্পাদক মাওলানা মুশতাকুন্নবী, ছাত্র ও যুব সম্পাদক মাওলানা হাফেজ মো. জোবায়ের ও দফতর সম্পাদক মাওলানা হাফেজ মো. তৈয়ব।

Similar Posts

error: Content is protected !!